ফেসবুক আইডি নিরাপদ রাখার উপায়

  বিশেষ সতর্কতা! ঈদ-উৎসবে অসংখ্য ফেসবুক আইডি হ্যাক,জেনে নিন কিভাবে আপনার আইডি নিরাপদ রাখবেন। নেট দুনিয়ায় আমরা কম বেশি সবাই ফেসবুক আইডি ব্যবহার করে থাকি। তবে এই ফেসবুক আইডি কিংবা পেইজ কতোটা নিরাপত্তা দরকার আমরা সেটা অনেকে জানি না। আবার এটাও অনেকে জানি না কিভাবে আমাদের ফেসবুক আইডি গুলো হ্যাক হয়ে যায়। তাই আমি আজ আপনাদের এই বিষয়ে কিছু পরামর্শ দিবো। আপনি যদি আমার দেয়া নিয়ম গুলো সঠিকভাবে পালন করেন তাহলে কোন দিনও আপনার ফেসবুক আইডি কিংবা পেইজ কেউ হ্যাক করতে পারবে না। 


চলুন জেনে নেয়া যাক হ্যাকাররা কিভাবে আমাদের ফেসবুক আইডি বা পেইজকে হ্যাক করে। আপনাকে নানা ধরনের প্রলোভন দেখিয়ে খুব সহজেই হ্যাকাররা আপনার ব্যবহৃত ফেসবুক আইডিটি তাদের আয়ত্তে নিতে পারে। ধরুন কোন একটি আইডি থেকে আপনাকে ম্যসেন্জারের মাধ্যমে লোভনীয় কিছু অফার দিয়ে একটা লিংক পাঠিয়ে দিল। এরপর তারা আপনাকে পরামর্শ দিবে কেউ যদি ঐ লিংকে ক্লিক করে তাহলে তারা সেই অফার টি পাবে। 


অথবা হ্যাকাররা ফেসবুকে নানান ধরনের আকর্ষণী  প্রডাক্টটের ছবি দিয়ে সেখানে ঈদ অফার কিংবা যেকোন উৎসব অফারের জন্য কম মূল্যে পণ্য বিক্রি করা হবে বলে জানিয়ে দিবে। এমন কি তারা খুব কৌশলে এটাও বলে থাকে কেউ যদি তাদের দেয়া লিংকে ক্লিক করে তাহলে তাকে আরো বিশেষ কিছু ডিসকাউন্ট দেয়া হবে। এমন লোভনীয় অাকর্ষনীয় অফারের ফাঁদে পা দিবেন না। কারণ আপনি যখন তাদের দেয়া লিংক  গুলোতে ক্লিক করবেন,, তখন আপনার অজান্তে মাত্র কয়েক সেকেন্ডে আপনার ফেসবুক আইডিটি হ্যাকাররা নিয়ে নিবে। সুতরাং অনলাইন প্লাটফর্মে কোন কিছু না বুঝে কোন লিংকে ক্লিক করা থেকে বিরত থাকুন। 


এছাড়াও আরো অনেক উপায় আপনার ফেসবুক আইডি কিংবা পেইজ হ্যাক হতে পারে। যেমন আপনার ব্যবহৃত আইডিটির মোবাইল নাম্বার কিংবা পাসওয়ার্ড অন্য কারো সাথে শেয়ার করবেন না এবং আইডির পাসওয়ার্ড হিসেবে কখনো মোবাইল নাম্বার দিবেন না। কারণ আমরা অনেকে জানি ফেসবুক আইডি তৈরি করতে মোবাইল নাম্বার কিংবা জিমেইল দরকার হয়।


 এতে করে অন্য যে কেউ খুব সহজেই আপনার প্রফাইলে গিয়ে আপনার জিমেইল ও মোবাইল নাম্বার সংগ্রহ করতে পারবেন। তাই এজন্য অবশ্যই আপনার ফেসবুক আইডির প্রফাইলে থাকা মোবাইল নাম্বার ও জিমেইল হাইড করে রাখুন অর্থাৎ Public বা Friends অপশনের পরিবর্তে only me সিলেক্টেড করে সেভ করে রাখুন, তাহলে অন্য কেউ আর আপনার মোবাইল নাম্বার কিংবা জিমেইল খুঁজে পাবে না। 


ফেসবুক আইডি হ্যাকিং থেকে বাঁচাতে হলে এক্ষুনি এই কাজটি করুন, তাহলে কোন হ্যাকার আপনার আইডিটি হ্যাক করতে পারবে না। আপানার ফেসবুক আইডিটিতে আপনার ব্যবহৃত মোবাইল নাম্বার দিয়ে Two step verification চালু করে রাখুন। এক্ষেত্রে অবশ্যই আপনাকে আপনার আইডিটির পাসওয়ার্ড মনে রাখতে হবে এবং টু স্টেপ ভেরি ফিকেশন চালু করার সময় যে মোবাইল নাম্বারটি দিবেন অবশ্যই সেই মোবাইল নাম্বার খোলা রাখতে হবে। 


Two  Step verification চালু হওয়ার পর আপনি যতবার লগ ইন করবেন ঠিক ততোবার আপনার মোবাইল নাম্বারে ছয় সংখ্যার একটি OTP কোড যাবে। যতোক্ষণ আপনি ঐ OTP কোডটি না বসাবেন ততক্ষণ আইডিটি লগ ইন করতে পারবেন না। সুতরাং একটি ফেসবুক আইডি সুরক্ষিত রাখার সবচেয়ে কার্যকারী উপায় হলো Two Step Verification চালু করা। 

Post a Comment

নবীনতর পূর্বতন